দৈনিক চলনবিলের কথা
ঢাকাThursday , 24 September 2020
  1. অন্যান্য
  2. অপরাধ
  3. অপহরণ
  4. অর্থনীতি
  5. আইন-আদালত
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আলোচনা সভা
  8. ই-পেপার
  9. এক্সক্লুসিভ
  10. কুষি
  11. ক্রিকেট
  12. খুলনা
  13. খেলাধুলা
  14. গণমাধ্যম
  15. গাছ

অভয়নগরে পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মিলন কুমার মন্ডলের অভিযানে ধর্ষন মামলার ২জন আসামী গ্রেফতার

chk24 a3
September 24, 2020 7:47 pm
Link Copied!

অভয়নগরে পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মিলন কুমার মন্ডলের অভিযানে ধর্ষন মামলার ২জন আসামী গ্রেফতার

মোঃ কামাল হোসেন, যশোর জেলা প্রতিনিধি


যশোর অভয়নগর ভাঙ্গাগেট নামক স্থানে খাবার হোটেলের রাঁধুনিকে হোটেলের মালিক সহ ৩জন মিলে গণধর্ষণের ঘটনা ঘটিয়েছে।অভয়নগর থানায় এ ঘটনায় মামলা রুজু হয়েছে।

অনুসন্ধানে জানা যায়,

লিপি বেগম পিরোজপুরে বাড়ি,শশুর বাড়ি যশোরের অভয়নগর উপজেলার ভাঙ্গাগেট(সাউথ বেঙ্গল মিলের সামন)আমডাঙ্গা নামক গ্রামে বসবাস করে।একই এলাকার জৈনেক আতিয়ার রহমানের ভাঙ্গাগেট এলাকায় ভাতের হোটেলে কাজ করে লিপি বেগম।তার হোটেল ভালোভাবে না চলায় হোটেলের জায়গার মালিক জাহিদুল ইসলাম ভাতের হোটেল চালাতে চাই।১৪/০৯/২০২০ইং তারিখে জাহিদুল ইসলাম,লিপি বেগমকে হোটেলে কাজের ব্যাপারে কথা আছে বলে ১৫/০৯/২০২০ইং তারিখে সন্ধ্যায় জাহিদুলের বাড়ির সামনে দেখা করতে বলে।জাহিদুলের কথামতো লিপি বেগম ১৫/০৯/২০২০ইং রাত ৯ ঘটিকার দিকে তার বাড়ির সামনে যায়।তখন কথা বলার এক পর্যায়ে  জাহিদুল ইসলাম তার সঙ্গে রাত যাপনের জন্য প্রস্তাব দেয়।লিপি বেগম রাজি না হলে জাহিদুল ইসলাম  তার গলা চেপে ধরে,টেনে হেঁচড়ে জাহিদুলের বাড়ির সামনে ইটের পাকা রাস্তার পাশে ধান ক্ষেতের মধ্যে আইলের উপড়ে ফেলে ধর্ষণ করে।জাহিদুল ধর্ষণ করার সময় একই এলাকার আসাদ ও নুর ইসলাম ঘটনা স্থানে আসে।জাহিদুল ধর্ষণের পর আসাদ ধর্ষণ করে এবং জাহিদুল ও নুর ইসলাম রাস্তার উপর গিয়ে পাহারা দেয়।আসাদ উপর্যুপরি ধর্ষণ করে লিপি বেগমকে মৃত্যুর ভয় দেখিয়ে কাউকে কিছু না বলার জন্য হুমকি দেয়।তারপর লিপি বেগমকে ফেলে তিনজনই ঘটনাস্থল ত্যাগ করে।(এজাহারে বর্ণিত)

অভয়নগর থানায় মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা চৌকস্ পুলিশ পরিদর্শক(তদন্ত)অভয়নগর থানা, জনাব মিলন কুমার মন্ডল এর সঙ্গে কথা বললে,তিনি জানান,এই ঘটনায় লিপি বেগম নিজে সশরীরে থানায় এসে  অভয়নগর থানায় ৩ জনকে আসামী করে গন-ধর্ষণ মামলা করেছে।

মামলা নং ২৫ তাং ২০/০৯/২০২০ইং,

৯(৩)/৩০,২০০০নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন সংশোধনী ২০০৩ গণধর্ষণ ও সহায়তা করার অপরাধ।মামলার ১ ও ৩ নং আাসামি জাহিদুল ইসলাম ও নুর ইসলাম কে গ্রেপ্তার করে,ঘটনার সত্যতাই ১৬৪ ধারায় আসামিরা কোর্টে নিজ জবানবন্দী প্রদান করে।

আসামী১/জাহিদুল ইসলাম(৪০),পিতাঃমৃত আরশাদ আলী শেখ,২/আসাদ(৩৫)পিতাঃমৃত ফজর আলী,৩/নূর-ইসলাম(৪৫)পিতাঃকায়সেদ আলী সরদার, সর্ব সাং আমডাঙ্গা, থানাঃঅভয়নগর,জেলাঃ যশোর।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।
x