Dhaka , Monday, 20 May 2024
www.dainikchalonbilerkotha.com

আগুনে পুড়ল শিক্ষক দম্পতির বাড়ি,ক্ষতি ২৫ লাখ টাকা

পাবনার ভাঙ্গুড়ায় অগ্নিকান্ডে এক শিক্ষক দম্পতির বাড়ি পুড়ে গেছে।ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের দাবি,অগ্নিকান্ডে নগদ লক্ষাধিক টাকা ও আসবাবপত্রসহ প্রায় ২৫ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। আজ সোমবার(২৯) এপ্রিল দুপুরে উপজেলার ছোটবিশাকোল গ্রামে এই দুর্ঘটনা ঘটে।ক্ষতিগ্রস্ত দম্পতি হলেন, পৌরসভার শরৎনগর সিনিয়র ফাযিল মাদরাসার ক্রীড়া শিক্ষক আব্দুল হামিদ ও উপজেলার ছোটবিশাকোল উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা সেলিনা বানু।বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিট থেকে অগ্নিকান্ডের সূত্রপাত বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

অষ্টমনিষা ইউনিয়ন পরিষদের(ইউপি)চেয়ারম্যান সুলতানা জাহান বকুল অগ্নিকান্ডের ঘটনাটি নিশ্চিত করেছেন।এদিকে খবর পেয়ে বিকেলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নাজমুন নাহার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন এবং ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারকে অর্থ সহায়তা প্রদান করেন।

স্থানীয়রা জানান, দুপুরে সাড়ে ১২ টার দিকে শিক্ষক আব্দুল হামিদ ও সেলিনা বানু দম্পতির বাড়িতে হঠাৎ আগুন লাগে।খবর পেয়ে গ্রামের লোকজন ছুটে এসে আগুন নেভানো শুরু করে।কিন্তু ততোক্ষণে পুরো বাড়িতে আগুন ছড়িয়ে যায়।আগুনে বাড়ির পাঁচটি কক্ষের সমস্ত কিছুই পুড়ে যায়।এতে নগদ লক্ষাধিক টাকা ও আসবাবপত্রসহ ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ প্রায় ২৫ লাখ টাকা।ঘটনার সময় ওই শিক্ষক দম্পতি তাদের কর্মস্থলে ছিলেন।

ক্ষতিগ্রস্ত আব্দুল হামিদ বলেন, আগুনে তার নগদ টাকাসহ প্রায় ২৫ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।তিনি ভীষণ অসুস্থ,এখন বেশি কথা বলতে পারছেন না।

অষ্টমনিষা ইউনিয়ন পরিষদের(ইউপি)চেয়ারম্যান সুলতানা জাহান বকুল বলেন, খবর পেয়ে তিনি ঘটনাস্থলে গিয়েছিলেন।অগ্নিকান্ডে পরিবারটির বহু টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নাজমুন নাহার বলেন, অগ্নিকান্ডের ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারকে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে নগদ ১০ হাজার টাকার অনুদান প্রদান করা হয়েছে।

 

 

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

আগুনে পুড়ল শিক্ষক দম্পতির বাড়ি,ক্ষতি ২৫ লাখ টাকা

আপডেটের সময় 10:01 pm, Monday, 29 April 2024

পাবনার ভাঙ্গুড়ায় অগ্নিকান্ডে এক শিক্ষক দম্পতির বাড়ি পুড়ে গেছে।ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের দাবি,অগ্নিকান্ডে নগদ লক্ষাধিক টাকা ও আসবাবপত্রসহ প্রায় ২৫ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। আজ সোমবার(২৯) এপ্রিল দুপুরে উপজেলার ছোটবিশাকোল গ্রামে এই দুর্ঘটনা ঘটে।ক্ষতিগ্রস্ত দম্পতি হলেন, পৌরসভার শরৎনগর সিনিয়র ফাযিল মাদরাসার ক্রীড়া শিক্ষক আব্দুল হামিদ ও উপজেলার ছোটবিশাকোল উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা সেলিনা বানু।বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিট থেকে অগ্নিকান্ডের সূত্রপাত বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

অষ্টমনিষা ইউনিয়ন পরিষদের(ইউপি)চেয়ারম্যান সুলতানা জাহান বকুল অগ্নিকান্ডের ঘটনাটি নিশ্চিত করেছেন।এদিকে খবর পেয়ে বিকেলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নাজমুন নাহার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন এবং ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারকে অর্থ সহায়তা প্রদান করেন।

স্থানীয়রা জানান, দুপুরে সাড়ে ১২ টার দিকে শিক্ষক আব্দুল হামিদ ও সেলিনা বানু দম্পতির বাড়িতে হঠাৎ আগুন লাগে।খবর পেয়ে গ্রামের লোকজন ছুটে এসে আগুন নেভানো শুরু করে।কিন্তু ততোক্ষণে পুরো বাড়িতে আগুন ছড়িয়ে যায়।আগুনে বাড়ির পাঁচটি কক্ষের সমস্ত কিছুই পুড়ে যায়।এতে নগদ লক্ষাধিক টাকা ও আসবাবপত্রসহ ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ প্রায় ২৫ লাখ টাকা।ঘটনার সময় ওই শিক্ষক দম্পতি তাদের কর্মস্থলে ছিলেন।

ক্ষতিগ্রস্ত আব্দুল হামিদ বলেন, আগুনে তার নগদ টাকাসহ প্রায় ২৫ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।তিনি ভীষণ অসুস্থ,এখন বেশি কথা বলতে পারছেন না।

অষ্টমনিষা ইউনিয়ন পরিষদের(ইউপি)চেয়ারম্যান সুলতানা জাহান বকুল বলেন, খবর পেয়ে তিনি ঘটনাস্থলে গিয়েছিলেন।অগ্নিকান্ডে পরিবারটির বহু টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নাজমুন নাহার বলেন, অগ্নিকান্ডের ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারকে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে নগদ ১০ হাজার টাকার অনুদান প্রদান করা হয়েছে।